January 17, 2020

আজ বঙ্গবন্ধু বিপিএল পাচ্ছে নতুন চ্যাম্পিয়ন।

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পর্দা নামছে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের। আজ শুক্রবার রাজধানীর মিরপুর স্টেডিয়ামে ফাইনালে মুখোমুখি হবে খুলনা টাইগার্স ও রাজশাহী রয়্যালস। ম্যাচ শুরু হবে সন্ধ্যা সাতটায়। ফাইনালিস্ট দুই দলের কেউই এর আগে শিরোপার স্বাদ পায়নি।

রাজশাহী রয়্যালসের অধিনায়ক আন্দ্রে রাসেল। বুধবার রাতে ম্যাচ শেষে স্পষ্ট করে বলে দিয়েছেন, ‘ফাইনাল জয়ের পরই পার্টি হবে।’ চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের বিরুদ্ধে ২ উইকেটের দুরন্ত জয়ের পর এখন ফাইনালে চোখ রাজশাহীর। রাসেল বলেছিলেন, ‘আমাদের দুই দিনের মধ্যেই একটি গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ আছে। আমি সেই ম্যাচের পরই পার্টি করতে চাই।’

কাগজে-কলমে এবারের আসরের অন্যতম শক্তিধর দল ছিল রাজশাহী। এক ঝাঁক অলরাউন্ডারে ভরা পদ্মা পাড়ের দলটি। লিগ পর্বে ৮ জয় নিয়ে প্লে-অফ খেলেছিল তারা। প্রথম কোয়ালিফায়ারে হারলেও বুধবার দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার জিতে ফাইনালে উঠে রাজশাহী। তবে ফাইনালের প্রতিপক্ষ খুলনার বিপক্ষে তিক্ত স্মৃতি রয়েছে দলটির।

টুর্নামেন্টের লিগ পর্বে রাজশাহী-খুলনার লড়াইটা ১-১ এ সমতা ছিল। তৃতীয় সাক্ষাতে অবশ্য (প্রথম কোয়ালিফায়ার) হেরেছিল রাজশাহী। ২-১ এগিয়ে আছে খুলনা। আজ চতুর্থ সাক্ষাত্টা তাই রাজশাহীর জন্য সমতায় শেষ করার মঞ্চ। একই সঙ্গে প্রথমবার বিপিএল ট্রফি জয়ের গৌরব অর্জনের সুযোগ। এর আগে বিপিএলে একবারই ফাইনাল খেলেছিল রাজশাহী বিভাগের দল। ২০১৬ সালে সেবার ড্যারেন স্যামির নেতৃত্বে ফাইনালে ঢাকা ডাইনামাইটসের কাছে হেরেছিল রাজশাহী কিংস। দ্বিতীয়বার ফাইনালের মঞ্চে এসে ট্রফি নিয়েই ফিরতে চায় দলটি।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের বাকি কোচদের তুলনায় অনেক তরুণ জেমস ফস্টার। কিন্তু তিনিই সবার আগে খুলনা টাইগার্স দল নিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছেন। সর্বশেষ আগের রাতে দেখেছেন রাজশাহী রয়্যালসের অবিশ্বাস্য জয়। এই প্রবল ফর্মে থাকা রাজশাহীকেই ফাইনালে সামলাতে হবে ফস্টারের দলকে। ফাইনালের আগে তিনি বলছিলেন, একক কোনো খেলোয়াড়কে লক্ষ্য করে লাভ নেই। ফাইনালে তাদের স্মার্ট ক্রিকেট খেলতে হবে।

রাজশাহীকে নিয়ে কথা বলতে গিয়ে ফস্টার বলছিলেন, তারা বেশ শক্ত প্রতিপক্ষ এবং ভালো দল। আগামীকাল আমাদের নিজেদের নিংড়ে দিতে হবে তাদের হারাতে হলে। যতটুকু সম্ভব আমরা প্রস্তুতি নিয়ে নিয়েছি, আত্মবিশ্বাসও বেশ ভালো। শেষ চারটি ম্যাচে আমরা টানা জিতেছি। যার সবকটি আমাদের কাছে নক আউট ম্যাচের মতই গুরুত্বপূর্ণ ছিল। আমরা ভালো ছন্দে আছি, এখন মাঠে সেটা দিতে পারলেই হয়।

আগের ম্যাচ রাজশাহীকে জিতিয়েছেন আন্দ্রে রাসেল। ফস্টার অবশ্য এক রাসেলকে নিয়ে পরিকল্পনা করার পক্ষে নন, ‘আমরা তাদের একাদশের সবাইকে নিয়েই পরিকল্পনা করছি।’

মিরপুরের উইকেটে টসে জেতাটা গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হতে পারে। কিন্তু ফস্টার বলছিলেন, তিনি এ নিয়ে ভাবছেন না, ‘আমি মনে করি না (উইকেট, টস গুরুত্বপূর্ণ)। আমার কাছে মনে হয় এটা সম্পূর্ণ সেরা ক্রিকেট খেলা ও স্মার্ট ক্রিকেট খেলার ব্যাপার। আমাদের দুই দলেরই পাওয়ার হিটার আছে, বোলিং অপশনেও দু দলই কাছাকাছি। সুতরাং এটা নিজেদের দিনে সেরা ক্রিকেট খেলার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।’

ফস্টারের অগাধ বিশ্বাস আছে নিজের ব্যাটসম্যানদের প্রতি। তিনি বলছিলেন, ‘আমাদের ব্যাটিং লাইন আপ বেশ দুর্দান্ত করছে। পুরো টুর্নামেন্টজুড়ে প্রথম সাতজন ব্যাটসম্যান দলে অবদান রেখেছে বেশ ভালোভাবে। ব্যাট কিংবা বল হাতে আমরা বেশ দারুণ অবস্থানে আছি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *