November 5, 2019

এমপির সহযোগী যুবলীগ নেতা সন্ত্রাসী মাসুক মিয়ার ঘাট দখল, সাধারণ জনগণ ভয়ে মুখ খুলছেনা।

সুনামগঞ্জ জেলা এক আসনের সংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতন এর সহযোগী উঃ বড়দল ইউনিয়ন এর যুবলীগের আহ্বায়ক সন্ত্রাসী মাসুক মিয়া ঐতিহ্যবাহী বাদাঘাট বাজার এর সরকারি ঘাট ড্রেজার দিয়ে ভরাট করে দখল করে মার্কেট তৈরি করেছে। এই ঘাটের সিরি মাটির নিচে এখনো আছে। সে একই বাজারের বনিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও রতন এমপির সহচর হওয়ায় কেউ সরাসরি প্রতিবাদ করতে পারে না। কেউ প্রতিবাদ করতে গেলে বিভিন্ন ভাবে তাকে হয়রানি করে। এই বিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা ইউনোর কাছে বল্লে উনারা এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবেন বলে জানায়। অতচ আজ কয়েক মাসেও কোন সুরাহা হয় নি। পরে জানাগেছে উপজেলা কর্মকর্তা ও জরিত আছে উক্ত বিষয়ে। তাছাড়া তার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ রয়েছে, নিরীহ লোক নির্যাতন করে হত্যা, ইয়াবা দিয়ে সাংবাদিক ফাঁসানো সহ অবৈধ ভাবে জাদুকাটা নদীর পাড় কেটে বালি উত্তোলন করা।

এবিষয় জানতে চাইলে তাহেরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হোসেন খান বিষয়টির সত্যতা জানান। এ বিষয়ে আরও কিছু স্থানীয় জন প্রতিনিধি ও জনসাধারণ ঘটনা সত্য বলে জানান, তারা হলো : বর্তমান বাদাঘাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জনাব আফতাব উদ্দিন। বর্তমান উত্তর বড়দল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জনাব আবুল কাশেম। বর্তমান বাদাঘাট কলেজের প্রিন্সিপাল জুনাব আলী, বর্তমান উত্তর বড়দল ইউনিয়ন এর সাবেক চেয়ারম্যান বর্তমান আওয়ামী লীগের সভাপতি জামাল উদ্দিন, বর্তমান উত্তর বড়দল ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম। সকলেই তার বিষয়ে অবগত কিন্তু কেউ কিছু করতে পারতেছে না এমপি রতনের সহযোগিতায় খুন অবৈধ দখল মহাজনী সুদ নদী ভরাট করে মার্কেট নির্মাণ সহ সকল অপকর্মের সাথে জড়িত। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় নিরীহ জনসাধারণ ক্ষোভ প্রকাশ করেন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *