May 22, 2020

ঢাকার দুই প্রবেশ পথ ব্যক্তিগত গাড়ি প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে দূরপাল্লার গণপরিবহন বন্ধ থাকলেও ঈদুল ফিতরে ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে গ্রামের বাড়ি যেতে পারবে ঘরমুখো মানুষেরা। এ কারণে ঈদের দুদিন আগে ঢাকার দুই প্রবেশ পথ ব্যক্তিগত গাড়ি প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

গতকাল বৃহস্পতিবার সরকারের উচ্চমহল থেকে এ ধরনের একটি মৌখিক নির্দেশনা পুলিশের প্রতিটি রেঞ্জের ডিআইডি, পুলিশ সুপার (এসপি) এবং মেট্রোপলিটন শহরের উপ-কমিশনারদের (ডিসি) জানিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) একটি সূত্রে জানা গেছে।
সূত্রটি আরো জানায়, গণপরিবহন নয় ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে ছুটিতে জরুরি কাজের জন্য কেউ গ্রামের বাড়ি ফিরতে চাইলে তাদের যেতে দিতে বলা হয়েছে। তাদের বাধা না দিতে পুলিশকে সরকারের পক্ষ থেকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এমন নির্দেশনার পর ইন ও আউটের ক্ষেত্রে গাবতলীতে পুলিশের দুটি চেকপোস্ট তুলে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন মিরপুর ডিভিশনের দারুস সালাম জোনের এডিসি মাহফুজা আফরোজ লাকী। তিনি গণমাধ্যমকে জানান, আমরা নির্দেশনা পেয়েছি। রাত ১০টার দিকে চেকপোস্ট উঠিয়ে নেওয়া হয়েছে।

এই পুলিশ কর্মকর্তা বলেন, গণপরিবহন সম্পূর্ণ বন্ধ থাকবে। কেউ যদি মাইক্রোবাস ও প্রাইভেটকার নিয়ে ঢাকা থেকে বের হয় বা প্রবেশ করে তাতে বাধা নেই। হেঁটে গেলেও বাধা নাই।

ঢাকার আরেক প্রান্তে যাত্রাবাড়ী থানার ওসি মাজহারুল ইসলামও একই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে বলেন, গণপরিবহন সম্পূর্ণ বন্ধ থাকবে। তবে প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসযোগে ইন-আউট করা যাবে। তবে যাত্রাবাড়ীতে পুলিশের চেকপোস্ট আছে বলে জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *